যুক্তরাষ্ট্রে আঘাত হানছে ভয়ঙ্কর হারিকেন স্যালি

106

ভয়ঙ্কর হারিকেন স্যালি যুক্তরাষ্ট্রের দক্ষিণাঞ্চলীয় উপকূলে আঘাত হানতে যাচ্ছে। বুধবার স্থানীয় সময় সকালের দিকে স্যালি আঘাত হানতে পারে বলে আবহাওয়া দতফরের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে। এর প্রভাবে প্রবল বৃষ্টি ও আকস্মিক বন্যা দেখা দিতে পারে। এ সময়ে ঘন্টায় বাতাসের সর্বোচ্চ গতিবেগ থাকবে ১৪০ কিলোমিটার।

মিয়ামি ভিত্তিক আবহাওয়া কেন্দ্র থেকে সতর্ক করে বলা হয়েছে, উত্তরাঞ্চলীয় গালফ কোস্টে ভয়ংকর বন্যা দেখা দিতে পারে। এছাড়া কোন কোন এলাকায় ৫০ সেন্টিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টিপাত হতে পারে।

আবহাওয়ার সতর্ক বার্তায় আরো বলা হয়েছে, উপকূলের দিকে এগিয়ে আসার পরে ঘূর্ণিঝড় আরো ভয়ঙ্কর রূপ নিতে পারে।

এদিকে স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সন্ধ্যাতেই আলাবামা ও ফ্লোরিডার প্রায় ৭৫ হাজার বাড়িঘর বিদ্যুৎ বিহীন হয়ে পড়েছে। এছাড়া কিছু এলাকায় বন্যাও দেখা দিতে শুরু করেছে।

আবহাওয়াবিদরা বলছেন, আটলান্টিক মহাসাগরে যে ৫টি ক্রান্তীয় সাইক্লোন সৃষ্টি হয়েছে স্যালি তার একটি। ১৯৭১ সালের সেপ্টেম্বরের পর এই প্রথম আটলান্টিকে একসাথে ৫টি ঝড় সৃষ্টি হয়েছে।

আলাবামার গভর্ণর কে আইভি এক সংবাদ সম্মেলনে বাসিন্দাদের সম্ভব হলে নিরাপদ আশ্রয়ে চলে যাওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি আরো বলেন, আবহাওয়াবিদরা ঐতিহাসিক রেকর্ড সৃষ্টিকারী বন্যার পূর্বাভাস দিচ্ছেন। এতে জানমালের ক্ষতি হওয়ার ঝুঁকি তৈরি হয়েছে।
ইতোমধ্যে তিনি সোমবার রাজ্যে জরুরি অবস্থা জারি করেছেন।

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প স্যালিকে হারিকেন লরার সাথে তুলনা করেছেন। মাত্র কয়েক সপ্তাহ আগে লরা টেক্স্রাস, লুইজিয়ানা ও ক্যারিবিয়ান এলাকা লন্ডভন্ড করেছে।

ট্রাম্প টুইট করে বলেন, আলাবামা, লুইজিয়ানা ও মিসিসিপির জনগণকে সহায়তায় আমরা রাজ্য ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দের সাথে সার্বক্ষণিক যোগযোগ অব্যাহত রেখেছি। তিনি জনগণকে রাজ্য ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দের কথা শোনার আহ্বান জানান।

এদিকে আটলান্টিকের সর্বশেষ ঝড় হারিকেন পলিট্টি সোমবার বারমুদা দ্বীপে আঘাত হেনেছে। এ এসময়ে এটি ক্যাটাগরি টু ঝড়ে রূপ নেয়। এর প্রভাবে প্রবল বাতাস ও বৃষ্টি দেখা দেয়। এছাড়া মধ্য আটলান্টিকে অবস্থানরত ক্রান্তীয় ঝড় টেড্ডি হারিকেনে রূপ নিতে পারে বলে আবহাওয়া অফিস থেকে সতর্ক করা হয়েছে। বাসস