রোমের বাংলাদশে দূতাবাস র্কতৃক ঐতহিাসকি ৭ই র্মাচ উদযাপন

128

ইতালতিে বাংলাদশে দূতাবাস যথাযোগ্য র্মযাদা ও ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দয়িে আজ ‘ঐতহিাসকি ০৭ র্মাচ’ উদযাপন করছে।ে জাতরি পতিা বঙ্গবন্ধু শখে মুজবিুর রহমান-এর ০৭ র্মাচ ১৯৭১-এ প্রদত্ত ঐতহিাসকি ভাষণ স্মরণে ডজিটিাল প্ল্যাটর্ফমে আয়োজতি দনিব্যাপি এই অনুষ্ঠানরে মধ্যে ছলি জাতীয় পতাকা আনুষ্ঠানকিভাবে উত্তোলন, জাতরি পতিার প্রতকিৃততিে পুষ্পস্তবক র্অপণ, জাতরি পতিা ও মুক্তযিুদ্ধরে বীর শহদিদরে স্মরণে এক মনিটি নরিবতা পালন, বাণী পাঠ, প্রামাণ্যচত্রি প্রর্দশন এবং দশেি ও বদিশেি আলোচকদরে অংশগ্রহণে আলোচনা সভা।

সকালে জাতীয় সঙ্গীতরে সাথে জাতীয় পতাকা উত্তোলনরে মধ্য দয়িে দনিরে র্কমসূচী শুরু হয়। এরপরে দূতাবাসরে সভাকক্ষে দবিসটি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি এবং প্রধানমন্ত্রী প্রদত্ত বাণী পাঠ করা হয়। এরপরে জাতরি পতিা বঙ্গবন্ধু শখে মুজবিুর রহমান-এর ০৭ র্মাচ ১৯৭১ দয়ো ঐতহিাসকি ভাষণটি প্রর্দশন করা হয়। ঐতহিাসকি এই দনিরে উপর পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় র্কতৃক নর্মিতি প্রামাণ্যচত্রিও প্রর্দশতি হয়।

ইতালি প্রবাসী বাংলাদশেী রাজনতৈকি, সামাজকি-সাংস্কৃতকি নতেৃবৃন্দ, সাংবাদকি ছাড়াও বদিশেী নাগরকিগণরে অংশগ্রহণে একটি প্রাণবন্ত আলোচনা সভায় ইতালরি কাতানয়িা ও পালরেমো শহরে নযিুক্ত বাংলাদশেরে অনারারি কনসাল জনোরলে যথাক্রমে এডভোকটে জোভান্নি ভানাদয়িা (Adv. Giovanni Vanadia) এবং ভসিনেজো দি তান্তো (Mr. Vincenzo Di Tanto) ঐতহিাসকি এই দনিটি উপলক্ষে তাদরে শুভচ্ছো বক্তব্য প্রদান করনে। এছাড়া রোমস্থ প্রখ্যাত লা সাপয়িঞ্জো (La Sapienza) বশ্বিবদ্যিালয়রে সহকারী অধ্যাপক মারা মাত্তা (Mara Matta) লখিতি র্বাতার মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর এই ভাষণকে বাঙ্গালি জাতরি স্বাধীনতার দকি নর্দিশেক হসিবেে উল্লখে করনে। আলোচকগণ ৭ই র্মাচরে ভাষণকে বাংলাদশেরে ইতহিাসরে একটি অনন্যসাধারণ ঘটনা হসিবেে উল্লখে করনে। প্রবাসীদরে কল্যাণে দূতাবাস র্কতৃক গৃহীত সাম্প্রতকি র্কাযক্রমরে জন্যও বক্তারা দূতাবাসকে ধন্যবাদ জানান। উল্লখ্যে, আলোচনা সভায় ইতালি প্রবাসী ছাড়াও ইউরোপরে অন্যান্য দশেে বসবাসকারী এবং র্বতমানে বাংলাদশেে অবস্থানকারী প্রবাসী বাংলাদশেরিা অংশগ্রহণ করনে।

রাষ্ট্রদূত মোঃ শামীম আহসান তার বক্তব্যরে শুরুতে জাতরি পতিা বঙ্গবন্ধু শখে মুজবিুর রহমান এবং মহান মুক্তযিুদ্ধরে সকল বীর শহদিদরে গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করনে। বঙ্গবন্ধুর ঐতহিাসকি ০৭ র্মাচ এর ভাষণ সর্ম্পকে তনিি বলনে, এই ভাষণ শুধুমাত্র বাঙালি জাতকিইে স্বাধীনতা র্অজনে অনুপ্রাণতি করনে,ি সারা বশ্বিরে নপিীড়তি-নর্যিাততি স্বাধীনতাকামী মানুষকে অনুপ্ররেণা যুগয়িছেে এবং ভবষ্যিতওে মানুষকে প্ররেণা যোগাব।ে ভাষণটরি অর্ন্তনহিতি তাৎর্পয অনুধাবন করইে ইউনস্কেো ২০১৭ সালে এ ভাষণকে ‘বশ্বি প্রামাণ্য ঐতহিাসকি’ (World Documentary Heritage) হসিবেে ‘মমেোরি অব দ্যা ওর্য়াল্ড ইন্টারন্যাশনাল রজেস্টিার’ (International Memory of the World Register)-এ অর্ন্তভুক্ত করছেে বলে রাষ্ট্রদূত উল্লখে করে বলনে য,ে এটি ভাষণটকিে একটি আর্ন্তজাতকি মাত্রা দয়িছে।ে তনিি আরও বলনে য,ে ২০২১ বাংলাদশেরে স্বাধীনতার সুর্বণ জয়ন্তী এবং জাতরি পতিার জন্মশতর্বাষকিী ‘মুজবির্বষ’ হওয়ায় এ বছরটি বাঙালি জাতরি জন্য অত্যন্ত গুরুত্বর্পূণ একটি বছর। রাষ্ট্রদূত র্বতমান সরকারকে প্রবাসী-বান্ধব সরকার হসিবেে উল্লখে করে ছুটরি দনিে কন্স্যুলার সবো প্রদানসহ দূতাবাস র্কতৃক প্রবাসীদরে কল্যাণে গৃহীত সাম্প্রতকি বভিন্নি র্কমসূচী সর্ম্পকে সকলকে অবহতি করনে।

উল্লখ্যে, কোভডি মহামারীর ভয়াবহতার প্রক্ষেতিে ইতালি সরকার র্কতৃক আরোপতি কঠোর স্বাস্থ্যবধিি অনুসরণ করে শুধুমাত্র দূতাবাসরে সদস্যদরে উপস্থতিতিে সীমতি পরসিরে দূতাবাসে এবং অনলাইন প্লাটর্ফম তঙঙগ এ অনুষ্ঠানটি আয়োজন করা হয়।