ফাইজার ভ্যাকসিন শিশুদের জন্য শতভাগ কার্যকর

151

ফাইজার ও বায়োএনটেকের ভ্যাকসিন ১২ থেকে ১৫ বছর বয়সী শিশুদের করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ১০০ শতাংশ কার্যকর বলে সংবাদ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে কোম্পানি দুটো। বুধবার এ সংবাদ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়।

কোম্পানি দুটো এক বিবৃতিতে বলেছে, যুক্তরাষ্ট্রে ২ হাজার ২৬০ জনের ওপর এ তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল হয়। এতে দেখা গেছে এ ভ্যাকসিন শতভাগ কার্যকর। আর এটা প্রয়োগে শক্তিশালী এন্টিবডিও দেখা গেছে শরীরে। এ বয়সের শিশুদের জন্য এ করোনার ভ্যাকসিন ভালো সহনীয় ছিল, কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াও দেখা যায়নি। কোম্পানিগুলো বলছে, বেশি বয়সী শিশু ও কম বয়সী শিশুদের মাঝে একই ধরনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া লক্ষ্য করা গেছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এ ব্যাপারটা নিশ্চিত হয়েছে যে এ ভ্যাকসিনটি শিশুদের জন্য কর্যকর। করোনা মহামারী সমাপ্তিতে এ ভ্যাকসিন গুরুত্বপূর্ণ। যদিও করোনা আক্রান্ত হয়ে শিশুদের মৃত্যুর সম্ভাবনা কম। কিন্তু, শিশুরা এ ভাইরাসের সংক্রমণে অসুস্থ হতে পারে এবং সাধারণ মানুষের মধ্যে এ ভাইরাসের বিস্তার ঘটাতে পারে।

ফাইজারের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আরবার্ট বোওরলা এক বিবৃতিতে বলেন, এ ক্লিনিকাল ট্রায়ালের ফলাফল তাকে উৎসাহিত করেছে। ফাইজার কোম্পানি সামনের সপ্তাহে মার্কিন খাদ্য ও ওষুধ নিয়ন্ত্রণ সংস্থাকে এ তথ্যগুলো সরবারহ করবে বলে ভাবছে। যাতে করে ১২ বছর বা তার বেশি বয়সী শিশুদের জন্য জরুরী ভিত্তিতে ফাইজারের এ ভ্যাকসিন ব্যবহারের অনুমোদন পাওয়া যায়।

ফাইজার কোম্পানি আশা করে ১২ -১৫ বছর বয়সী শিশুদেরকে তাদের স্কুল খোলার আগেই এ ভ্যাকসিন প্রদান করা হবে বলেও মন্তব্য করেন আরবার্ট বোওরলা। সূত্র : এবিসি নিউজ ও আল-জাজিরা