ফ্লোরিডায় ভবন ধ্বসের ঘটনাস্থল পরিদর্শনে গিয়েছেন বাইডেন

50

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং ফার্স্ট লেডি জিল বাইডেন বৃহস্পতিবার ফ্লোরিডার সার্ফসাইডে ভবন ধ্বসের ঘটনাস্থল পরিদর্শনে গেছেন।সেখানে আপাতত উদ্ধারকাজ বন্ধ রাখা হয়েছে। বাইডেন দম্পতি বৃহস্পতিবার ভোরে এয়ারফোর্স ওয়ানে করে মায়ামি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান।

বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে মায়ামি-ডেইড কাউন্টির মেয়র ড্যানিয়েলা লেভিইন কাভা সন্ধান ও উদ্ধারকাজ বন্ধের সিদ্ধান্তের ব্যাখ্যা দিয়েছেন।তিনি বলেন, “ভবনের অক্ষত অংশটিতে কাঠামোগত উদ্বেগের কারণে আমরা ভোরের দিকে এই অভিযান বন্ধ করতে বাধ্য হয়েছি। উদ্ধারকর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা এবং একইসঙ্গে উদ্ধারকাজ চালিয়ে যাওয়ার বিষয়টি আমাদের কাছে সবচেয়ে বেশী গুরুত্বপূর্ণ। নিরাপত্তার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া মাত্র আমরা উদ্ধার অভিযান আবার শুরু করবো।”

মায়ামি-ডেইড কাউন্টি ফায়ার চিফ অ্যালান কমিনস্কি ধ্বংসস্তূপের নীচে এখনও জীবিত থাকতে পারে এমন কাউকে খুঁজে বের করার প্রয়াসের বিপজ্জনক দিকটি তুলে ধরেন এবং উদ্ধার অভিযান স্থগিত করার প্রয়োজনীয়তার বিষয়টি ব্যাখ্যা করেন। বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, “ভবনের উত্তর ও দক্ষিণ কোণের কাঠামো অত্যন্ত নাজুক অবস্থায় রয়েছে এবং ধ্বসে পরতে পারে।”

কমিনস্কি বলেন বুধবার উদ্ধারকর্মীরা কুকুর, ভিডিও এবং সোনার সেন্সার ব্যবহারের মাধ্যমে ধ্বংসস্তুপের নিচে ফাঁকা জায়গা খুঁজছিলেন যেখানে কোনও ব্যক্তি থাকতে পারে।

বাইডেন ব্রিফিং এর সময় তাঁর ডান পাশে বসা ফ্লোরিডার গভর্নর রিপাবলিকান রন ডিসান্টিস এর প্রতি সহানুভূতি জানিয়ে বলেন, “এটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ, আমি এখানে সবাইকে একত্রিত হওয়ার কথা বলছি। এটি জীবন এবং মৃত্যুর বিষয়।

ড্যাসান্টিস বাইডেনকে বলেন, “মিঃ প্রেসিডেন্ট আপনাকে ধন্যবাদ। আপনি এই দুঃখজনক ঘটনার তীব্রতা শুরু থেকেই অনুভব করেছেন এবং সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন।”